শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৪.১৬°সে

সৌদি আরবে সাফল্য দেখাল বাংলাদেশি হাফেজ ফয়সাল

অনলাইন ডেস্ক:
সৌদি আরবের মক্কায় অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় আবারো কৃতিত্বের স্বাক্ষর রেখেছে বাংলাদেশের দুই হাফেজ। গত ২৫ আগস্ট সৌদি আরবের ইসলাম ও দাওয়াহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে মক্কায় ৪৩তম ৪৩তম বাদশাহ আবদুল আজিজ আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতা শুরু হয়। এতে বিশ্বের ১১৭টি দেশ থেকে আসা ১৬৬ প্রতিযোগীর মধ্যে বাংলাদেশের মুখ উজ্জল করল দুই হাফেজ।

প্রতিযোগিতার পূর্ণ কোরআন হিফজ বিভাগে তৃতীয় স্থান অধিকার করেছে হাফেজ ফয়সাল আহমেদ। পুরস্কার হিসেবে সে পেয়েছে এক লাখ ৮০ হাজার সৌদি রিয়াল, বাংলাদেশি মুদ্রায় ৫২ লাখ ৬২ হাজার ৮০৯ টাকা ও সম্মাননা পদক।

প্রতিযোগিতার চতুর্থ বিভাগে ১৫ পারা ক্যাটাগরিতে চতুর্থ স্থান অর্জন করেছে হাফেজ মো. মুশফিকুর রহমান। পুরস্কার হিসেবে সে পেয়েছে এক লাখ ২০ হাজার সৌদি রিয়াল,যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩৫ লাখ ৮ হাজার ৫৩৯ টাকা ও সম্মাননা পদক।

স্থানীয় সময় বুধবার এশার নামাজের পর মক্কার মসজিদুল হারামে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মাধ্যমে সৌদি আরবের বাদশাহ সালমানের পক্ষ থেকে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার দিয়েছেন মক্কার ডেপুটি গভর্নর প্রিন্স বদর বিন সুলতান। পাঁচ বিভাগে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের সর্বমোট ৪০ লাখ সৌদি রিয়াল পুরস্কার দেওয়া হয়। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা সাড়ে ১১ কোটি টাকারও বেশি। প্রথমস্থান অর্জনকারী পুরস্কার হিসেবে পেয়েছে পাঁচ লাখ রিয়াল।

হাফেজ ফয়সাল আহমেদ রাজধানীর মারকাজুত তাহফিজ ইন্টারন্যাশনাল মাদরাসায় পড়াশোনা করেছে। তার বাড়ি ব্রাক্ষণবাড়িয়ায়। সে পূর্ণ কোরআন হিফজ বিভাগে অংশ নিয়েছে। অপর প্রতিযোগী মো. মুশফিকুর রহমান পবিত্র কোরআনের ১৫ পারা হিফজ বিভাগে অংশ নিয়েছে। সে কক্সবাজারের মা’হাদ আন-নিবরাসে কোরআন হিফজ সম্পন্ন করেছে।

হাফেজ ফয়সাল আহমেদের অভিভাবক ও শিক্ষক শায়েখ নেছার আহমাদ আন নাছিরী জানান,তার পরিচালিকত মারকাজুত তাহফিজ ইন্টারন্যাশনাল মাদরাসা থেকে এপর্যন্ত সৌদি আরবে কোরআন প্রতিযোগিতা করে ৬ জন এবং এবার হাফেজ ফয়সালসহ তার সাতজন ছাত্র আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেল। প্রবাসীসহ যারা দোয়া করেছেন সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

এদিকে আন্তর্জাতিক এ প্রতিযোগিতার বিচারক প্যানেলে প্রথম বারের মতো একজন বাংলাদেশি আলেম দায়িত্ব পালন করেছেন। ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের মুহাদ্দিস হাফেজ মাওলানা ড. ওয়ালীয়ুর রহমান খান এ দায়িত্ব পালন করেন। প্রতিযোগিতার বিচারকার্য যথাযথ পালন করায় অনুষ্ঠানে তাঁকেও বিশেষ সম্মাননা প্রদান করা হয়।

গত বছর বাংলাদেশ থেকে হাফেজ সালেহ আহমদ তাকরীম প্রতিযোগিতার তাজবিদসহ অর্ধ-কোরআন হিফজ বিভাগে অংশ নিয়ে তৃতীয় স্থান অর্জন করে। বিজয়ী হিসেবে সে এক লাখ রিয়াল (প্রায় সাড়ে ২৭ লাখ টাকা) পুরস্কার ও সম্মাননা ক্রেস্ট লাভ করে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

আর্জেন্টিনার দুটি প্রীতি ম্যাচের সূচি ঘোষণা
লিবিয়ায় আটক ১৪৪ বাংলাদেশি দেশে ফিরলেন
গাজার আবাসিক এলাকায় ইসরাইলের হামলা, নিহত ৪০
শিশুর সামনে ধূমপান করলেই জরিমানা
বাবার পদবি মুছে ফেললেন বারাক ওবামার মেয়ে
মাদারীপুরের বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়েতে বাস-ট্রাক সংঘর্ষ, নিহত ৪

আরও খবর