শনিবার, ২৫শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২০.৪৯°সে
সর্বশেষ:
জাজিরা প্রান্তের উদ্বোধনী ফলক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী সুধী সমাবেশে বক্তব্য দিতে গিয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু বাংলাদেশের প্রতিচ্ছবি : বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী স্বপ্নের পদ্মা সেতুর দুয়ার খুললেন বাংলাদেশেরর প্রধানমন্ত্রী সমাবেশস্থলে মানুষের ঢল এক নজরে পদ্মা সেতুর আদ্যোপান্ত নরওয়েতে সমকামীদের বারে গুলি, নিহত ২ যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদেও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণ বিল পাস সাড়ে ৭ বছরে কাজ করেছেন ১৪ হাজার শ্রমিক-প্রকৌশলী পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সময়সূচি আজ পদ্মার উৎসবে মাতবে পুরো বাংলাদেশ জবিতে সাংবাদিকতার বুনিয়াদি প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

হৃদয়স্পর্শী স্ট্যাটাস দিয়ে দ. আফ্রিকায় বাংলাদেশির আত্মহত্যা

শরীফ উদ্দিন, দক্ষিণ আফ্রিকা

‘আমি একটু শান্তিতে ঘুমাতে চাই, আগরবাতির ঘ্রাণ ছড়ানো সাদা কাপড়ে পেঁচানো কাঠঘেরা কোন বক্সে’- ফেসবুকে এমন একটি হৃদয় স্পর্শ করা স্ট্যাটাস দিয়ে ভালোবাসার মানুষটাকে না পাওয়ার কথা শুনিয়ে পৃথিবীর মায়া ছেড়ে গেলেন দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রবাসী বাংলাদেশি হাবিবুর রহমান।

পোর্ট এলিজাবেথ শহরের অদূরে থাকতেন হাবিব (২৯)। রোববার রাতে নিজ কর্মস্থলে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন তিনি।

নিহত মো. হাবিব নোয়াখালী জেলার সোনাইমুড়ী উপজেলার আমিশাপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। তিনি তিন বছর আগে উন্নত জীবনের আশায় দক্ষিণ আফ্রিকায় আসেন। তিনি বড় ভাইয়ের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করে আসছিলেন।

জানা যায়, প্রতিদিনের মতোই তার বড়ভাই তাকে খাবার দেওয়ার জন্য আজ সোমবার সকাল ৯টার সময় ব্যাবসা প্রতিষ্ঠানে যান। ১১টার সময় হাবিব ফোন রিসিভ না করলে বড় দোকানে এসে দেখতে পায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। পরে দোকানের দরজা ভেঙে ভিতরে ডুকে তিনি দেখতে পান হাবিবুর রহমান মৃতদেহ ঝুলন্ত অবস্থায়।

চলতি বছরের মার্চ মাসের ২১ তারিখে হাবিব লিখেছেন- শীতের চাদর জড়িয়ে কুয়াশার মাঝে দাঁড়িয়ে হাত দুটো দাও বিলিয়ে, শিশিরের শীতল স্পর্শে যদি শিহরিত হয় তোমার মন, তাহলে বুঝে নিও আমি আছি তোমার পাশে সারাক্ষণ।

এছাড়া আত্মহত্যার পথ বেছে নেওয়ার আগে হাবিব তার স্টোরিতে বিরহের দুইটি গানের অংশ বিশেষ শেয়ার করেছিলেন।

হাবিবুর রহমানের ফেসবুকের স্ট্যাটাসগুলো দেখে বুঝা যায়- পুলিশকন্যার সাথে ভালোবাসার লম্বা সময় পার করলেও প্রবাসী হাবিবুর রহমানের ভালোবাসায় আস্থা রাখতে পারছিল না পুলিশ পরিবার। তাই তিনি বেশ কিছুদিন থেকে ডিপ্রেশনে ছিলেন।

উল্লেখ্য, ভালোবাসার মানুষটির সঙ্গে অভিমান করে দক্ষিণ আফ্রিকায় এ পর্যন্ত তিন বাংলাদেশি আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

নরওয়েতে সমকামীদের বারে গুলি, নিহত ২
মিশিগানে সুনামগঞ্জ জেলা সোসাইটির আত্মপ্রকাশ
যুক্তরাষ্ট্রে ফোবানার সুনাম ক্ষুন্নে ব্যস্ত একটি মহল
যুক্তরাষ্ট্রে হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ৬
যুক্তরাষ্ট্রের পাঠানো দূরপাল্লার লঞ্চার পৌঁছে গেছে ইউক্রেনে
ঈদুল আজহার সম্ভাব্য তারিখ জানাল আমিরাত

আরও খবর


close