সোমবার, ১৬ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২৩.৭°সে
সর্বশেষ:
ভূমধ্যসাগর থেকে ৩২ বাংলাদেশি উদ্ধার ইরানে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে নিহত ৫ বাংলাদেশে এসডিজি বাস্তবায়নে অর্থের সর্বোত্তম ব্যবহার নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান কুকুরের মাংস দিয়ে বিরিয়ানি বিক্রি, মালিক আটক উত্তীর্ণ হচ্ছেন সাত কলেজের অকৃতকার্য শিক্ষার্থীরা আমেরিকা-কানাডায় সাড়া ফেলেছে বাংলাদেশি চিকিৎসা বিজ্ঞানী ডা. মুনির হোসেনের বই বাংলাদেশির উদ্যোগে মালদ্বীপে কৃষি বিদ্যালয় উদ্বোধন ইউক্রেনের তিন যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করার দাবি রাশিয়ার বাজারের ব্যালেন্স ঠিক রাখার জন্যই সরকার ধান চাল কেনেন – খাদ্য মন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন লক্ষে সুনামগঞ্জ যুবলীগের নানা কর্মসূচি সুনামগঞ্জ কুশিয়ারা নদীতে ৩ দিন ধরে ফেরি চলাচল বন্ধ, দুর্ভোগ চরমে কুসিক নির্বাচন: আচরণবিধি দেখার জন্য ৩ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।।নগরীতে বিজিবি মোতায়েন

খাগড়াছড়িতে ৪ গুদামে মিলল ৫৭ হাজার লিটার সয়াবিন তেল

খাগড়াছড়ি সংবাদদাতা:

খাগড়াছড়ির রামগড়ে এক ব্যবসায়ীর পৃথক ৪টি গুদামে ৫৭ হাজার লিটার সয়াবিন তেলের অবৈধ মজুতের সন্ধান পেয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

অবৈধভাবে তেল মজুত করে বাজারে কৃত্রিম সংকট তৈরির দায়ে রামগড়ের সোনাইপুল বাজারের মেসার্স খাঁন ট্রেডার্স নামে ওই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিক মো. ফজলুল করিম পাটোয়ারীকে এক লাখ টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় একই অপরাধে ওই বাজারের মেসার্স আলমগীর স্টোরকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

শুক্রবার (৬ মে) অভিযান চালিয়ে রামগড় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট খোন্দকার মো. ইখতিয়ার উদ্দীন ওই দুই ব্যবসায়ীকে এ জরিমানা করেন।

জানা গেছে, ভোজ্যতেলের অবৈধ মজুদের খবর পেয়ে রামগড়ের সোনাইপুল বাজারের মেসার্স খাঁন ট্রেডার্সে অভিযান চালানো হয়। এ সময় ওই প্রতিষ্ঠানের মালিক ফজলুল করিমের ৪টি গুদামে ৫৭ হাজার লিটার সয়াবিন তেল পাওয়া যায়। কোনো ধরনের ডিলিং লাইসেন্স ছাড়া বাজারে কৃত্রিম সঙ্কট সৃষ্টি করে অধিক মুনাফার জন্যই এভাবে তেল মজুদ করা হয়েছে।

একই বাজারের মেসার্স আলমগীর স্টোর নামে আরেকটি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানেও অনুরুপ অভিযান চালিয়ে সয়াবিন তেলের অবৈধ মজুত পাওয়া যায়।

রামগড় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট খোন্দকার মো. ইখতিয়ার উদ্দীন জানান, ডিলার লাইসেন্স ছাড়া ভোজ্যতেলের ডিলার হিসেবে ব্যবসা করা এবং সয়াবিন তেলের অবৈধ মজুতের দায়ে অত্যাবশ্যকীয় পণ্য নিয়ন্ত্রণ আইন ১৯৫৬-এর ৬ ধারায় মেসার্স খাঁন ট্রেডার্সকে ১ লাখ টাকা এবং মেসার্স আলমগীর স্টোরকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

57,000 liters of soybean oil was found in 4 warehouses in Khagrachari

Khagrachhari Correspondent:

A mobile court has found 57,000 liters of soybean oil in four separate warehouses of a trader in Ramgarh, Khagrachhari.

The owner of the business named Messrs. Khan Traders in Sonaipul Bazar, Ramgarh, is accused of creating an artificial crisis in the market by illegally storing oil. A mobile court has fined Fazlul Karim Patwari Tk 100,000. At that time, Messrs. Alamgir’s store in that market was fined Tk 25,000 for the same crime.

Ramgarh Upazila Executive Officer and Executive Magistrate Khandaker said on Friday (May 8). Ikhtiyar Uddin fined the two businessmen.

It is learned that a raid was carried out at Messrs. Khan Traders in Sonaipul Bazar of Ramgarh after receiving information about illegal stock of edible oil. At that time, 57,000 liters of soybean oil was found in 4 warehouses of Fazlul Karim, the owner of the company. Oil has been stockpiled for more profit by creating an artificial crisis in the market without any kind of dealing license.

A similar operation was also carried out at another trading post named Messrs. Alamgir Store in the same market and illegal stocks of soybean oil were found.

Ramgarh Upazila Executive Officer and Executive Magistrate Khandaker. Ikhtiyar Uddin said that under Section 7 of the Essential Commodities Control Act 1956, Messrs. Khan Traders was fined Rs.

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

ইরানে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে নিহত ৫
বাংলাদেশে এসডিজি বাস্তবায়নে অর্থের সর্বোত্তম ব্যবহার নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান
কুকুরের মাংস দিয়ে বিরিয়ানি বিক্রি, মালিক আটক
উত্তীর্ণ হচ্ছেন সাত কলেজের অকৃতকার্য শিক্ষার্থীরা
আমেরিকা-কানাডায় সাড়া ফেলেছে বাংলাদেশি চিকিৎসা বিজ্ঞানী ডা. মুনির হোসেনের বই
বাংলাদেশির উদ্যোগে মালদ্বীপে কৃষি বিদ্যালয় উদ্বোধন

আরও খবর


close