শনিবার, ২৫শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২০.১৪°সে
সর্বশেষ:
জাজিরা প্রান্তের উদ্বোধনী ফলক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী সুধী সমাবেশে বক্তব্য দিতে গিয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু বাংলাদেশের প্রতিচ্ছবি : বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী স্বপ্নের পদ্মা সেতুর দুয়ার খুললেন বাংলাদেশেরর প্রধানমন্ত্রী সমাবেশস্থলে মানুষের ঢল এক নজরে পদ্মা সেতুর আদ্যোপান্ত নরওয়েতে সমকামীদের বারে গুলি, নিহত ২ যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদেও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণ বিল পাস সাড়ে ৭ বছরে কাজ করেছেন ১৪ হাজার শ্রমিক-প্রকৌশলী পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সময়সূচি আজ পদ্মার উৎসবে মাতবে পুরো বাংলাদেশ জবিতে সাংবাদিকতার বুনিয়াদি প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

বাংলাদেশে বিটকয়েনের মাধ্যমে চলছে ৬ ধরনের অপরাধ

অনলাইন ডেস্ক:

অবৈধ অস্ত্র ও মাদক কেনাবেচা, বিদেশে অর্থ ও মানবপাচার, জঙ্গিদের অর্থায়ন এবং অনলাইন জুয়া— এই ছয় ধরনের অপরাধে ব্যবহৃত হচ্ছে অবৈধ ভার্চুয়াল মুদ্রা। বিশেষ করে বিটকয়েনের মাধ্যমে এসব অপরাধ সংঘটিত হলেও পর্যাপ্ত প্রশিক্ষণ না থাকায় অপরাধের সঙ্গে জড়িতদের আইনের আওতায় আনতে পারছে না আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

এ অবস্থায় বিটকয়েনের ব্যবহারকারী ও ব্যবসায়ীদের আইনের আওতায় আনতে নির্দেশনার পাশাপাশি বিটকয়েনের প্রযুক্তি সম্পর্কিত আধুনিক তথ্য ও জ্ঞান লাভে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়সহ কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করতে বলা হয়েছে। বিশেষ করে পুলিশের সাইবার ইউনিট এবং গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যদের প্রশিক্ষণ, আধুনিক যন্ত্রপাতি ও সফটওয়্যার সংগ্রহের মাধ্যমে প্রযুক্তিগত দক্ষতা অর্জনের নির্দেশনা দেওয়া হয়।

সম্প্রতি একটি গোয়েন্দা সংস্থার প্রতিবেদনের ভিত্তিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের রাজনৈতিক অধিশাখা-২ থেকে এ সংক্রান্ত একটি চিঠি পাঠানো হয়েছে পুলিশ সদর দফতরে। পুলিশের অতিরিক্ত উপ-মহাপরিদর্শক কাজী জিয়া উদ্দিনের সই করা সেই চিঠির আলোকে কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পুলিশের বিভিন্ন ইউনিটে নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সংশ্লিষ্টরা জানান, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির অভাবনীয় অগ্রগতির কারণে বিশ্বব্যাপী কাগুজে মুদ্রার পাশাপাশি ডিজিটাল মুদ্রার সূচনা ও ব্যবহার শুরু হয়েছে। বিশ্বের সর্বপ্রথম ডিজিটাল বা ভার্চুয়াল মুদ্রা হলো বিটকয়েন। ২০০৮ সাল থেকে চালুর পর থেকেই বাংলাদেশে অবৈধ এই মুদ্রার ব্যবহার শুরু হয়েছে। বৈধ পণ্য কেনাবেচা ছাড়াও বিটকয়েনের মাধ্যমে মাদক, অস্ত্র, চোরাচালান, মানবপাচার, অর্থপাচারসহ নানা অবৈধ পণ্য ও সেবা কেনাবেচায় বিট কয়েন ব্যবহার হচ্ছে। ব্যবহারকারীদের শনাক্ত এবং তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ দুরূহ হওয়ার কারণে সম্প্রতি বাংলাদেশে এর ব্যবহার আশঙ্কাজনক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। বিশেষ করে মাদক, অর্থপাচার, অনলাইন ভিডিও গেমসের পেমেন্ট, অনলাইন জুয়া, মানবপাচার ও জঙ্গি কর্মকাণ্ডে অর্থায়নে বিটকয়েন বেশি ব্যবহার হচ্ছে। এর মাধ্যমে বিপুল পরিমাণ অর্থ বিদেশে পাচারও হয়ে যাচ্ছে বলে গোয়েন্দা সংস্থার ওই প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

There are 6 types of crimes going on in Bangladesh through bitcoin

Online Desk:

Illegal virtual currency is being used for six types of crimes: illegal arms and drug trafficking, money and human trafficking abroad, financing of militants and online gambling. Although these crimes are committed through bitcoin, the law enforcement agencies are not able to bring those involved in the crime under the law due to lack of adequate training.

In this situation, besides instructing Bitcoin users and traders to be brought under the law, it has been asked to make arrangements for training of officers and employees including law enforcement, financial institutions and concerned ministries to get modern information and knowledge about Bitcoin technology. In particular, members of police cyber units and intelligence agencies are instructed to acquire technical skills through training, acquisition of modern equipment and software.

A letter in this regard has been sent to the police headquarters from the political wing-2 of the home ministry on the basis of a recent report by an intelligence agency. In the light of the letter signed by Additional Deputy Inspector General of Police Kazi Zia Uddin, instructions have been sent to various units of the police to take effective action. This information has been known from the relevant sources.

According to the concerned, due to the unimaginable progress of science and technology, the introduction and use of digital currency along with paper money has started all over the world. Bitcoin is the world’s first digital or virtual currency. The use of this illegal currency has started in Bangladesh since its introduction in 2006. In addition to trading in legal goods, bitcoins are being used to trade in various illegal goods and services, including drugs, weapons, smuggling, human trafficking, and money laundering. Its use in Bangladesh has recently increased at an alarming rate due to the difficulty in identifying users and taking action against them. Bitcoin is increasingly being used to finance drug, money laundering, online video game payments, online gambling, human trafficking and militancy. It is mentioned in the report of the intelligence agency that huge amount of money is being smuggled abroad through this.

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

জাজিরা প্রান্তের উদ্বোধনী ফলক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী
সুধী সমাবেশে বক্তব্য দিতে গিয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
পদ্মা সেতু বাংলাদেশের প্রতিচ্ছবি : বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী
স্বপ্নের পদ্মা সেতুর দুয়ার খুললেন বাংলাদেশেরর প্রধানমন্ত্রী
সমাবেশস্থলে মানুষের ঢল
এক নজরে পদ্মা সেতুর আদ্যোপান্ত

আরও খবর


close