শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৩.৬৭°সে
সর্বশেষ:
ঢাকায় এসেছে মার্কিন প্রতিনিধি দল ট্রাফিক সিগন্যাল সচল করতে আইজিপিকে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ আমাকে জেলে পাঠাতে পারে: জার্মান গণমাধ্যমকে ড. ইউনূস দেশের প্রথম এনাটমি অলিম্পিয়াডে বিজয়ী চমেকের দুই শিক্ষার্থী পাবনার মাঝ নদীতে আটকে পড়া ফেরি ১২ ঘণ্টা পর উদ্ধার ইউক্রেনের যুদ্ধ থেকে যুক্তরাষ্ট্র বিপুল মুনাফা করছে: মার্কিন গণমাধ্যম বরিশালে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের বিক্ষোভ ঢাকায় সুপ্রিম কোর্টের সম্মেলনে রাষ্ট্রপতি ও ভারতের প্রধান বিচারপতি আর্জেন্টিনার দুটি প্রীতি ম্যাচের সূচি ঘোষণা লিবিয়ায় আটক ১৪৪ বাংলাদেশি দেশে ফিরলেন গাজার আবাসিক এলাকায় ইসরাইলের হামলা, নিহত ৪০ শিশুর সামনে ধূমপান করলেই জরিমানা

বর্ণবাদের বিরুদ্ধে কড়া বার্তা বাইডেনের

অনলাইন ডেস্ক
বর্ণবাদের বিরুদ্ধে কড়া বার্তা দিলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

মার্টিন লুথার কিং জুনিয়রের ‘আই হ্যাভ আ ড্রিম বক্তৃতা’ র ৬০ বছর পূর্তি উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে এই বার্তা দিলেন বাইডেন।
সম্প্রতি ফ্লোরিডায় একটি দোকানে কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তিদের দিকে গুলি চালিয়েছে ২১ বছরের এক যুবক। পরে নিজেকেও শেষ করে দেন তিনি।

সেই প্রসঙ্গ টেনে এনেই এদিন নিজের বক্তৃতা সাজিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি বলেন, বর্ণবাদ নির্মূল করার সময় এসেছে। প্রেসিডেন্টের কথায়, “কালো মানুষদের জীবন যাতে এভাবে চলে না যায়, তা নিশ্চিত করতে হবে সরকারকে।”

বর্ণবাদ আমেরিকায় নতুন সমস্যা নয়। কৃষ্ণাঙ্গ মানুষদের দাবি এবং অধিকার নিয়ে আন্দোলন করেছিলেন মার্টিন লুথার কিং জুনিয়র। তার দীর্ঘ এবং তীব্র লড়াই আমেরিকার ইতিহাস বদলে দিয়েছিল। সে সময় তার বিখ্যাত বক্তৃতা দিয়েছিলেন মার্টিন লুথার কিং জুনিয়রের– আই হ্যাভ আ ড্রিম। সেই ঐতিহাসিক বক্তৃতার ৬০ বছর উদযাপন হয়েছে সোমবার। বাইডেন এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস দু’জনই উপস্থিত ছিলেন সেখানে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা। তিনি ভারতীয় বংশোদ্ভূতও বটে। কমলা হ্যারিসও এদিন বলেছেন, “আমেরিকায় কালো এবং সাদা মানুষের মধ্যে বিশেষ কোনও তফাত নেই। কিন্তু কেউ কেউ তফাত তৈরির চেষ্টা করছে। আমাদের দায়িত্ব তাদের সেই চেষ্টা ব্যর্থ করে দেওয়া। আমেরিকাকে কোনওভাবেই এই বিদ্বেষের মধ্যে ঢুকতে দেয়া যাবে না।”

বাইডেন বলেছেন, বর্ণবাদ এবং বিদ্বেষমূলক আক্রমণ বন্ধ করার জন্য সরকার কঠোরতম ব্যবস্থা নেওয়ার কথা ভেবেছে। যাতে এই ধরনের অপরাধের মূলোৎপাটন করা যায়।

বক্তৃতার পর হোয়াইট হাউসে মার্টিন লুথার কিং জুনিয়রের ছেলে-মেয়েদের সঙ্গে একান্তে বৈঠকও করেন বাইডেন ও কমলা হ্যারিস।

সম্প্রতি ফ্লোরিডায় ২১ বছরের এক যুবক বন্দুক নিয়ে জেনারেল স্টোরের ভিতর ঢুকে পড়ে। সেখানে শুধু কৃষ্ণাঙ্গদের দিকেই গুলি চালাতে থাকেন তিনি। ওই ঘটনায় তিনজনের মৃত্যু হয়। এরপর নিজেকেও শেষ করে দেন ওই যুবক। পুলিশ জানিয়েছে, ওই যুবক এর আগে ‘হেইট স্পিচও’ প্রচার করেছে।

বস্তুত, এর আগেও একাধিক এমন শুটআউটের ঘটনা ঘটেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। বর্ণবাদ নতুন করে মাথা চাড়া দিয়েছে আমেরিকায়। এদিন লুথার কিংয়ের ছেলে বলেছেন, “বর্ণবাদের মতো এক নতুন সংকটের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে আমেরিকা। দ্রুত এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।” সূত্র: রয়টার্স

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

ঢাকায় এসেছে মার্কিন প্রতিনিধি দল
ট্রাফিক সিগন্যাল সচল করতে আইজিপিকে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ
আমাকে জেলে পাঠাতে পারে: জার্মান গণমাধ্যমকে ড. ইউনূস
পাবনার মাঝ নদীতে আটকে পড়া ফেরি ১২ ঘণ্টা পর উদ্ধার
ইউক্রেনের যুদ্ধ থেকে যুক্তরাষ্ট্র বিপুল মুনাফা করছে: মার্কিন গণমাধ্যম
ঢাকায় সুপ্রিম কোর্টের সম্মেলনে রাষ্ট্রপতি ও ভারতের প্রধান বিচারপতি

আরও খবর