মঙ্গলবার, ২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৩১.০৯°সে
সর্বশেষ:
শপথ নিয়েই ফিলিস্তিনের ‘জয়ধ্বনি’, তোপের মুখে ওয়াইসি মতিউর ও পরিবারের ব্যাংক বিও হিসাব জব্দ সিলেট রেঞ্জ ডিআইজি কর্তৃক বিশ্বম্ভরপুর থানায় ব্রেস্ট ফিডিং কর্ণার ও লাইব্রেরি উদ্ভোধন সুপার এইট থেকে বিদায় নেওয়া বাংলাদেশ কত টাকা পাচ্ছে তিস্তা-গঙ্গার পানি বণ্টন হলে ভারতজুড়ে বড় আন্দোলন হবে : মমতা অধিবেশনের প্রথম দিন এমপি পদ থেকে ইস্তফা রাহুলের লালমনিরহাটে রাসেলস ভাইপার সন্দেহে মেরে ফেলা হলো দু’টি সাপ যুক্তরাজ্যের আসন্ন জাতীয় নির্বাচনে ২৫ বাংলাদেশি প্রার্থী যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার জঙ্গল থেকে ১০ দিন পর পর্বতারোহী উদ্ধার খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে কাল বিএনপির সংবাদ সম্মেলন মারা গেছেন সেই ‘জল্লাদ’ শাহজাহান চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে বিআরটিএর অভিযানে ১৮ মামলা

নিউইয়র্কে নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের পরিবেশনায় মুগ্ধ দর্শকশ্রোতা

অনলাইন ডেস্ক:
যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে প্রথমবারের মতো নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের নিয়ে সঙ্গীতানুষ্ঠান ‘কনসার্ট ফর দ্য অপ্টিমিস্টস অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১ জুলাই জামাইকার ওয়েক্সফোর্ড ট্যারেসের মেরি লুইস অ্যাকাডেমির মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত উক্ত সঙ্গীতানুষ্ঠানে নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের গানে সহায়তা করেন দেশ বিদেশের জনপ্রিয় গায়ক, সুরকার, সঙ্গীত পরিচালক ও প্রযোজক ফুয়াদ আল মুকতাদির।

সঙ্গীতানুষ্ঠান থেকে সংগৃহীত অনুদানের অর্থ যুক্তরাষ্ট্রের দানশীল সংস্থা ‘দ্য অপ্টিমিস্টস’-এর তহবিলে প্রদান করা হবে বলে শুভেচ্ছা বক্তব্যে উল্লেখ করেন রাহাত মুকতাদির। তিনি বলেন, নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের নিয়ে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে কোন প্রবেশ মূল্য ছিল না। অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে যারা যারা অনুদান প্রদান করেছেন তাদের সেই অর্থ আমরা দানশীল সংস্থা ‘দ্য অপ্টিমিস্টসের তহবিলে জমা করবো।

অনুদান প্রদানকারীসহ অনুষ্ঠানে আগত সকল অতিথিদের তিনি আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। তিনি বলেন গতানুগতিক অনুষ্ঠান থেকে বেরিয়ে আমরা একটি ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান আয়োজনের চেষ্টা করেছি মাত্র। এর ফলে আমাদের নতুন প্রজন্মের শিল্পীরা আরও বেশু উৎসাহিত হবেন বলে তিনি আশা করছেন।

নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের মধ্যে যারা গান করেছেন তারা হলেন-প্রিয়াংবদা ব্যানার্জি, সোনিয়া লাসমিন লাবনী, রু্দাবা, রানান, জোনাথন ও জাস্টিন। এছাড়াও অনুষ্ঠানে বিশেষ আকর্ষন হিসেবে ছিল এ সময়ের জনপ্রিয় সুরকার, সঙ্গীত পরিচালক ও প্রযোজক ফুয়াদ আল মুকতাদির ও তার ব্যান্ড দল ফুয়াদ আন্ড ফ্রেন্ডস। শিল্পীদের যন্ত্রসঙ্গীতে সঙ্গত করেন নিউ ইয়র্কের জনপ্রিয় ‘মাটি ব্যান্ডের শিল্পীরা’। এরা হলেন- পার্থ গুপ্ত, রিচার্ড, মাহফুজ, জোহান এবং দেবু চৌধুরী। ফুয়াদ অ্যান্ড ফ্রেন্ডস গ্রুপের শিল্পীরা সঙ্গীত পরিবেশন করেন। এরা হলেন-ফুয়াদ আল মুক্তাদির, পান্থ কানাই, হাসিব ও তাশফি। তাদের যন্ত্রে সঙ্গত করেন- ড্রামে তমাল, গিটারে নাঈম ও আদনান, বেস গিটারে পাভেল্‌ স্যাক্সোফোনে নিক জিয়ানি। এছাড়াও ইলিশিয়াম ব্যান্ডের পক্ষে সঙ্গীত পরিবেশন করেন রুডাবা (গিটার), জনাথন (গিটার), কীবোর্ডে-জাস্টিন, এবং ড্রামে টম। সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত চলে এ অনুষ্ঠান।

উল্লেখ্য, ফুয়াদ ১৯৮৮ সালে আট বছর বয়সে বাংলাদেশ ছেড়ে যুক্তরাষ্ট্র চলে আসেন। যুক্তরাষ্ট্রে আসার পর একটি জুনিয়র স্কুলে ভর্তি হন। তিনি সবসময় সঙ্গীত নিয়ে ব্যস্ত থাকতেন। অবশেষে ১৯৯৩ সালে মধু, হিমেল, শুমন এবং ফ্রেডকে সাথে নিয়ে তিনি একটি ব্যান্ড দল যেফির গঠন করেন। ১৯৯৯ সালে ব্যান্ড ভেঙে যাওয়ার পূর্ব পর্যন্ত তারা অনেকগুলো গান রেকর্ড করেন। তারা যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক শহরের বাংলাদেশি বসবাসকারীদের জন্য দুইটি এলবাম মায়া ১ এবং মায়া ২ বের করেন।

ফুয়াদ জনপ্রিয়তা লাভ করেন তার সঙ্গীতায়জনে মিলার কন্ঠে বাপুরাম সাপুরে এবং রুপবানে নাচে কোমর দোলাইয়া গানে। এছাড়াও ওয়ার্ল্ড কাপ টি-২০ থিম সং ‘চার ছক্কা হই হই’ গানেও তিনি প্রচুর জনপ্রিয়তা অর্জন করেন।

যেফির ব্যান্ড ছেড়ে আসার তার প্রথম রেকর্ড হল ‘রি-এভুলেশন।। অবস্কুর ব্যান্ডের কীবোর্ড বাদক সোহলে আজিজের সহায়তায় এই এলবামটি বের হয়। এই এলবামটিতে প্রধান গায়ক ও গৌণ গায়কের গাওয়া ১৪ টি গান অন্তর্ভুক্ত আছে। এই এলবামে আসল গানের পাশাপাশি একই গানের রিমিক্স গান অন্তর্ভুক্ত আছে। লিটুর ‘সিলতি’ অনীলা নাজ চৌধুরীর ‘ঝিলমিল’, আমরিন মুসার ‘ভ্রমর কইয়ো’ এবং ‘মন চাইলে মন’ এর রি-মিক্সড গান এই এলবামে অন্তর্ভুক্ত আছে। ফুয়াদ’স ভ্যারিয়েশন নং ২৫ প্রযোজিত হয় ২০০৬ সালে। ২০০৬ সালে এরপর জি-সিরিজ এবং আরশির ব্যনারে এই এলবামে আরো দুইটি নতুন গান অন্তর্ভুক্ত করে পূর্বের এলবামটি ভ্যারিয়েশন নং ২৫.২ নামে পুনরায় বের করা হয়। এই এলবামের কয়েকটি গানের নাম হলঃ পুনমের ‘নবীনা’ রাজিব/ফুয়াদের ‘নিটোল পায়ে’ এবং বাপ্পা মজুমদারের ‘কোন আশ্রয়’। ফুয়াদের ‘বন্য’ এলবামটি বের হয় ২০ জুলাই, ২০০৭ সালে জি-সিরিজের ব্যানারে। এই এলবামের কয়েকটি গানের নাম হলো উপলের ‘তোর জন্য আমি বন্য’, ফুয়াদ/বিশপের ‘বন্য র‍্যাপ’, ফুয়াদের ‘জংলী’, দা-দুষ্ট নাম্বার’ এবং নিটোল পায়ে (লাইভ)। ফুয়াদ আরো কিছু এলবামে কাজ করেছেন। যেমনঃ সুমন ও অনীলা’র ‘এখনো আমি’, তপুর (যাত্রী’র কন্ঠে) ‘বন্ধু হবে কি?, ফুয়াদ ফিচারিং কনা, ফুয়াদ ফিচারিং মালা, ফুয়াদ ফিচারিং মিলা ‘রি-ডিফাইন্ড’ এবং ফুয়াদ ফিচারিং বিভিন্ন শিল্পী ‘ক্রমান্বয়’ বের হয় ২০০৮ সালের ডিসেম্বরে। তিনি শেরিন, অনীলা, সুমন, তপু এবং অন্যান্য শিল্পীদের বিভিন্ন একক ও মিক্সড এলবামেও কাজ করেছেন।

ফুয়াদের পরিবার যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক শহরে স্বাস্থ্য সেবা সংক্রান্ত ব্যবসায় জড়িত। ২০১১ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি ফুয়াদ মায়াকে বিয়ে করেন। তার স্ত্রী মায়া, কানাডার ব্রিটিশ কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সমাজকর্ম বিষয়ে স্নাতক। ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ তে এই দম্পতির কন্যা আজালিয়া এবং ২০২১ সালে ছেলে জেন জন্মগ্রহণ করে্ন। বর্তমানে ফুয়াদ লস অ্যাঞ্জেলেসে বসবাস করছেন। সেখানে তার ব্লাক বক্স স্টুডিও পরিচালনা করছেন।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার জঙ্গল থেকে ১০ দিন পর পর্বতারোহী উদ্ধার
টটোয়া ইউনিয়ন ব্লুবার্ড সাবওয়ে স্যান্ডউইচ স্টোরে ডাকাতির চেষ্টা।। গ্রেফতার-১
যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়ার একটি বাড়িতে আগুনে পুড়ে ৬ জন নিহত
যুক্তরাষ্ট্রে ৯ জনকে গুলি করে বন্দুকধারীর আত্মহত্যা
ফ্রান্সে বাংলাদেশি কমিউনিটিতে ঈদ উদযাপন
মালয়েশিয়ায় ১৮ বাংলাদেশিসহ আটক ৪৩ অভিবাসী

আরও খবর